তসলিমা নাসরিন ও হেযবুত তওহীদের চেতনা এক ও অভিন্ন:

  প্রিয় পাঠক! আমরা বাংলাদেশের অধিবাসীদের কাছে পরিচিত ও প্রশিদ্ধ এক নাস্তিকের নাম হলো, ‘তসলিমা নাসরিন’। প্রশ্ন হলো, তসলিমা নাসরিন নাস্তিক কেন? কারণ নাস্তিক হতে গেলে মোটামুটি চারটা গুন প্রয়োজন। এ চারটা গুন খোদ তসলিমা নাসরিন নিজেই তার বইয়ে লিখেছে, ‘আমার ভাবতে ভালো লাগে এই মৌলবাদ বিরোধি সংগ্রামে আমি একা নই, অগুনতি ধর্মমূক্ত যুক্তিবাদী মানববাদী মানুষের মিছিলে আমি একজন।’ -নারীর …

Read More »

মুয়াবিয়া আল মুযানী রা.

হযরত আনাস রা. বর্ণনা করেন, عَنْ أَنَسِ بْنِ مَالِكٍ، قَالَ: نَزَلَ جِبْرِيْلُ عَلَيْهِ السَّلَامُ عَلَى النَّبِيِّ صلى الله عليه وسلم، فَقَالَ: يَا مُحَمَّدُ مَاتَ مُعَاوِيَةُ بْنُ مُعَاوِيَةَ الْـمُزَنِيُّ، أَتُحِبُّ أَنْ تُصَلِّيَ عَلَيْهِ؟ قَالَ: نَعَمْ ، فَضَرَبَ بِجَنَاحَيْهِ فَلَمْ تَبْقَ شَجَرَةٌ، وَلَا أَكَمَةٌ إِلَّا تَضَعْضَعَتْ، وَرَفَعَ لَهُ سَرِيْرَهُ حَتَّىٰ نَظَرَ إِلَيْهِ، فَصَلَّىٰ عَلَيْهِ وَخَلْفَهُ صَفَّانِ مِنَ الْـمَلَائِكَةِ فِيْ كُلِّ صَفٍّ سَبْعُوْنَ …

Read More »

মাশিতা ও ফিরআউন

عَنِ ‏‏ابْنِ عَبَّاسٍ رضي الله عنهما ‏‏قَالَ ‏ :قَالَ رَسُولُ اللَّهِ ‏‏صَلَّى اللَّهُ عَلَيْهِ وَسَلَّمَ : (‏ ‏لَمَّا كَانَتْ اللَّيْلَةُ الَّتِي ‏‏أُسْرِيَ ‏‏بِي فِيهَا ، أَتَتْ عَلَيَّ رَائِحَةٌ طَيِّبَةٌ ، فَقُلْتُ : يَا ‏جِبْرِيلُ ‏،‏ مَا هَذِهِ الرَّائِحَةُ الطَّيِّبَةُ ؟ فَقَالَ : هَذِهِ رَائِحَةُ ‏‏مَاشِطَةِ ابْنَةِ فِرْعَوْنَ ‏‏وَأَوْلادِهَا ، قَالَ : قُلْتُ : وَمَا شَأْنُهَا ؟ قَالَ : بَيْنَا هِيَ …

Read More »

দরুদের ওসিলায় কবরবাসীর মাফ

ইবনে হাজার হাইতামি রহি. ও ইমাম সাখাবী রহি. বলেন, وجاءت امرأة إلى الحسن البصري فقالت: توفّيت لي بنت، وأريد أن أراها في النوم، فأمرها أن تصلّي أربع ركعات بعد صلاة العشاء، تقرأ في كل ركعة الفاتحة و ألهاكم التكاثر مرة، ثم تضطجع وتصلّي على النبي صلى الله عليه وسلم إلى أن تنام، ففعلت فرأتها في أقبح العذاب وأشده و عليها لباس القطران و يداها مغلولة و …

Read More »

লাশের সাথে থেকে নেকি লেখো।

ঈমানের ফযিলত: أخرج أبو الشيخ في العظمة، والبيهقي في شعب الإيمان عن أنس أن النبي صلى الله تعالى عليه وسلم قال: (إن الله تعالى وكل بعبده المؤمن ملكين يكتبان عمله فإذا مات قال الملكان اللذان وكلا به: قد مات فأذن لنا أن نصعد إلى السماء فيقول الله تعالى: سمائي مملوءة من ملائكتي يسبحوني فيقولان: أنقيم في الأرض؟ فيقول الله تعالى: أرضي مملوءة من خلقي يسبحوني فيقولان فأين؟ فيقول: قوما …

Read More »

ঈমানদারের ঋন আল্লাহপাক পরিশোধ করে দেবেন।

وَقَالَ ابْنُ مَسْعُودٍ: إِذَا كَانَ يَوْمُ الْقِيَامَةِ جَمَعَ اللَّهُ الْأَوَّلِينَ وَالْآخِرِينَ وفي لفظ يؤخَذ بيد العبد أو الأمة يوم القيامة على رءوس الأوّلين والآخرين ثُمَّ ينَادى مُنَادٍ: ألا إن هذا فلان ابن فلان، فمن كان له حق قبله فليأت إلى حقه وفي لفظ أَلَا مَنْ كَانَ لَهُ مَظْلَمَةٌ فَلْيَجِئْ لْيَأْخُذْ حَقَّهُ فَيَفْرَحُ والله الْمَرْءُ أَنْ يَكُونَ لَهُ الْحَقُّ عَلَى وَالِدِهِ …

Read More »

নাস্তিকরা বলে, প্রাকৃতিক ভাবে মানুষ সৃস্টি হয়। তাহলে কারো ঘরে সন্তান হয়, কারো ঘরে হয় না কেন? নিয়মতান্ত্রিকতার সাথে হলে তো একইভাবে সব হওয়ার কথা অথচ হরব রকম খেলা সব হয় আল্লাহর হাতে। তুমি কাউরে দিলা দশটা সন্তান, জায়গা সম্পদ নাই। আবার কাউরে দিলা কোটি টাকা, একটা সন্তান নাই। তুমি কাউরে করলা প্রতিবন্ধী, দুইটা চক্ষু নাই, হাত-পা তুমি সবকিছু দিলা …

Read More »

: তুই যখন মায়ের গর্ভে ছিলি তুই কী দেখেছিলি যে পৃথিবীদি নামক একটা জগৎ আছে? : না। : তাহলে না দেখে যদি বিশ্বাস করা যৌক্তিক না হয়, তাহলে গর্ভে থাকাকালিন সময় পৃথিবি যে আছে এটা বিশ্বাস করা কী অযৌক্তিক ছিলো? : মায়ের পেটে থেকে তো পৃথিবি দেখা সম্ভব নয়। কারণ অনেক আবরণের মধ্যে ছিলাম। কিন্তু আমি তো দুনিয়ায় এসে দেখেছি …

Read More »

: যাকে দেখা যায় না, ধরা যায় না, তাকে বিশ্বাস করি না। : ওকে, বাতাস দেখেছেন কখনও? : না। : ধরতে পরছেন কখন? : না। : রোদ্র। : সম্ভব না। : আপনার জীবন দেখেছেন কখন? : না। : জীবন ধরে দেখেছেন কখনও? : না। : তাহলে বিশ্বাস করলেন যে? : না মানে, ইয়ে মানে…

Read More »

: আল্লাহ থাকলে দেখি না কেন? : আচ্ছা, ১৫ কোটি ১৪ লক্ষ কিলোমিটার দূরের সূর্যের দিকে ঠিক দুপুরে তাকিয়ে অবিরত চেয়ে থাকতে পারবেন আপনি? : সেটা সম্ভব নয়। : কেন? : চোখে সে শক্তি নেই। : তাহলে সে সূর্যের স্রষ্টা রবকে কীভাবে দেখবেন? অথচ এই সূর্যকে তিনি সৃস্টি করেছেন। মহান রব বলেন, هُوَ ٱلَّذِی جَعَلَ ٱلشَّمۡسَ ضِیَاۤءࣰ وَٱلۡقَمَرَ نُورࣰا وَقَدَّرَهُۥ …

Read More »